অপর্যাপ্ত সঞ্চয় নেই , বাড়িতে বসে থাকা সম্ভব নয় – রচনা

RBN Web Desk: নতুন পর্বে ফিরেছে বাংলা টেলিভিশনের অন্যতম জনপ্রিয় গেম শো ‘দিদি নম্বর ১’। করোনা ভাইরাসের জেরে লকডাউন শুরু হওয়ায় ১৭ মার্চ থেকে বন্ধ ছিল সমস্ত টেলিভিশন ধারাবাহিকের কাজ। অবস্থা কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আসার পর ১১ জুন থেকে সবরকম স্বাস্থ্যবিধি মেনে শুরু হয় ধারাবাহিকের শুটিং। তবে যেহেতু রিয়্যালিটি শো-এর ক্ষেত্রে দর্শকের উপস্থিতি বাধ্যতামূলক, তাই এগুলির শুটিং শুরু করার অনুমতি তখনও মেলেনি।

পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে ৬ জুলাই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় চলচ্চিত্র ও টেলিভিশন চ্যানেল সংগঠনগুলির সঙ্গে বৈঠকের পর কিছু শর্তসাপেক্ষে রিয়্যালিটি শো-এর শুটিং শুরু করার অনুমতি দেন। 

এদিকে করোনার প্রকোপ বাড়তে থাকায় সম্প্রতি কলকাতা ও দুই ২৪ পরগণায় ফের জারি হয়েছে লকডাউন। তবে এবারে শুধু কন্টেনমেন্ট জ়োনগুলিকেই এর আওতায় রাখা হয়েছে। দক্ষিণ ২৪ পরগণার খামার এলাকায় শুরু হয়েছিল ‘দিদি নম্বর ১’-এর শুটিং। কিন্তু সেই এলাকা কন্টেনমেন্ট জ়োন ঘোষণা হওয়ার পর এক সপ্তাহের জন্য বন্ধ রাখা হয়েছে এই গেম শো-এর শুটিং।

‘দিদি নম্বর ১’-এর সঞ্চালক রচনা বন্দ্যোপাধ্যায় সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন যে আপাতত তাঁরা সাত দিনের বিরতি নিচ্ছেন। তবে সবরকম সতর্কতা নিয়েই তাঁরা শুটিং করছিলেন। তাই এই দুর্যোগ পুরোপুরি কেটে না যাওয়া পর্যন্ত কাজ বন্ধ রাখার কোনও কারণ নেই বলেই মনে করেন তিনি। রচনার দাবি, হিন্দি ছবির তারকাদের মত তাঁর অপর্যাপ্ত সঞ্চয় নেই। তাই কাজ না করে টানা বাড়িতে বসে থাকাও তাঁর পক্ষে সম্ভব নয়। এ সংক্রান্ত স্বাস্থ্য বীমাও তাঁর রয়েছে বলে জানিয়েছেন রচনা।লকডাউন পরিস্থিতি না বদলালে, শহরের কোনও সাততারা হোটেলে হতে পারে ‘দিদি নম্বর ১’-এর পরবর্তী পর্যায়ের শুটিং।

1 thought on “অপর্যাপ্ত সঞ্চয় নেই , বাড়িতে বসে থাকা সম্ভব নয় – রচনা

  1. লকডাউনে ঘরে বসে এমন প্রাপ্তি খুব ভাল লাগছে, আশায় রইলাম আরও অনেক কিছু  দেখার ও জানার ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *