৭টি গায়ে হলুদ স্কিন কেয়ার টিপস | |

৭টি গায়ে হলুদ স্কিন কেয়ার টিপস

ডার্মাটোলজিস্ট আদর্শ মুদগিল, কসমেটিক কেমিস্ট মাইকেল ইয়াংয়ের প্রেসক্রিপশন।

সূর্যের প্রতীক হলুদ।তার একটু ছোঁয়াতে রূপে আগুন লাগে।যুগযুগান্তে বাঙালির হেঁসেল থেকে সাজঘরে হলুদের রাজত্ব।বিয়ে মানেই গায়ে হলুদ।প্রাচীন কাল থেকে এখনও  বিয়েতে বড় কনের রূপচর্চায় আর  যা হলুদ চিরন্তন।ছোটবেলায় মা-মাসিদের সর ময়দা হলুদের প্রলেপে রূপচর্চার অমলিন স্মৃতিসুধা যা এখনও আবহমান।হলুদ ত্বকের বন্ধু।এতে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট আছে যা স্কিনের ওপর ডেড সেলস ঝরাতে সাহায্য করে।কাঁচা ও শুকনা হলুদের গুঁড়াতে আছে প্রচুর পরিমাণে কারকিউমিন যৌগ,যা আসলে একটি অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট।আয়ুর্বেদ বিশেষজ্ঞরা কারকিউমিনকে ‘ম্যাজিক যৌগ’ বলেন। কারকিউমিন ছাড়াও হলুদে আছে ফোলেট যা ফলিক অ্যাসিডের মূল উপাদান, নিয়াসিন, ক্যালসিয়াম, সোডিয়াম, পটাসিয়াম, ফসফরাস, জিঙ্ক,ম্যাগনেসিয়াম, ম্যাঙ্গানিজ,আয়রন,ভিটামিন কে, ভিটামিন ই,প্রোটিন এবং কার্বোহাইড্রেট।

ত্বকের রূপচর্চায় হলুদের ম্যাজিক টিপস –

তৈলাক্ত ত্বকের প্যাকদেড় চামচ চন্দন.অর্ধেক চামচ হলুদবাটা,এক চামচ কমলালেবু বা মুসাম্বির রস মিশিয়ে প্যাক তৈরি করুন।প্রয়োজনে রস আরও মেশাতে পারেন।১৫ মিনিট এই প্যাক লাগিয়ে হালকা গরমজল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।একদিন অন্তর এই প্যাক লাগাতে পারেন।

ব্রণর জন্য-সমান পরিমাণে হলুদ ,চন্দনগুঁড়ো ও কয়েকফোঁটা পাতিলেবুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে ব্রণর ওপর ১০ মিনিট লাগিয়ে রাখুন।শুকিয়ে গেলে ঈষদুষ্ণ জলে ধুয়ে ফেলুন।প্রতিদিন রাতে এই প্যাক ব্যাবহার করা যেতে পারে।       

ড্ৰাই স্কিনের প্যাক-একটা ডিমের সাদা অংশ,দু ফোঁটা অলিভ অয়েল,পাতিলেবুর রস ও গোলাপ জল,অল্প হলুদগুঁড়ো মিশিয়ে নিন।মুখে আর গলায় এই প্যাক লাগিয়ে যতক্ষণ না শুকোয় রেখে দিন।এরপর ঠান্ডা জলে ধুয়ে ফেলুন।

বলিরেখা(রিঙ্কলস) দূর করতে-সমান পরিমাণে বেসন,হলুদগুঁড়ো কাঁচা দুধ বা দই মিশিয়ে নিন।সারা শরীর ও মুখে এই প্যাক লাগিয়ে কিছুক্ষন রাখুন।তারপর ভেজা হাতে হালকা মাসাজ করে স্নান করে নিন।সপ্তাহে অন্তত একদিন করলে ফল পাবেন।এই একই প্যাক স্ট্রেচ মার্কের ওপর প্রতিদিন লাগালে উপকার পাবেন।  

উজ্বল ত্বকের জন্য-বেসন আর হলুদের তৈরি স্ক্রাবার উজ্বল ত্বকের জন্য প্রাচীনতম প্রেসক্রিপশন যে ট্র্যাডিশন সমানে চলেছে।সময় পরিমাণে বেসন আর হলুদের একটা মিশ্রনে একটু জল দিয়ে একটা পেস্ট তৈরি করুন।এবারে সার্কুলার মোশনে স্কিনে লাগাতে থাকুন।কিছুক্ষন পর ধুয়ে নিয়েই উজ্বল ত্বকের ম্যাজিক দেখুন।

পিগমেন্টেশন রুখতে– এখনকার আবহাওয়া আর জীবনযাত্রায় পিগমেন্টেশন আর স্কিনের ডিসকালারিং একটা বড় আপদ।হলুদ গুঁড়োতে লেবুর রস দিয়ে একটা পেস্ট তৈরি করে লাগিয়ে রাখুন।কিছুক্ষণ পর ধুয়ে ফেলুন।রোজ ব্যবহার করে সাত দিন পরেই ফল লক্ষ্য করবেন।

অ্যান্টি ফাঙ্গাল ময়েশ্চারাইজার -হলুদ আর নারকেল তেলে অ্যান্টি ফাঙ্গাল উপাদান থাকার ফলে এর মিশ্রণ ত্বকে লাগিয়ে রাখলে লালচে ভাব,ফোলা ভাব,ড্ৰাই প্যাচ রুখে দেয়।একটা ভেজা টাওয়েল দিয়ে ব্যবহার করুন।  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *