৫ হার্বাল ফেসিয়াল

ড্ৰাই,ন্যাচারাল,অয়েলি,মিক্সড,সেনসিটিভ স্কিনের হার্বাল অ্যান্টি এজিং ফেশিয়াল এবার সহজেই বাড়িতে বানান।

রূপচর্চার খুব গুরুত্বপূর্ণ অংশ ফেশিয়াল।প্রাকৃতিক ভেষজ ফেশিয়ালের  উপকারীতা অমূল্য কারণ বাজারি ক্ষতিকারক রাসায়নিকের প্রাদুর্ভাব এড়িয়ে খাঁটি ভেষজের গুণাগুণ সমৃদ্ধ বলে।ড্ৰাই,ন্যাচারাল,অয়েলি,মিক্সড,সেনসিটিভ স্কিনের হার্বাল ফেশিয়াল এবার আপনার হাতের মুঠোয়।

ড্ৰাই স্কিনের জন্য

  • ১ চামচ টোম্যাটো পেস্ট,১ চামচ দুধ,আধ চামচ পাতিলেবুর রস,১ চামচ চালের গুঁড়ো একসঙ্গে মিশিয়ে নিন,এবার এক টুকরো টম্যাটোর সাহায্যে মিশ্রণটি মুখে ও গলায় লাগান।টোম্যাটটি ব্যবহার করেই পেস্টটি ভালোভাবে ঘষে নিন।
  • ক্লিনজিংয়ের পর স্ক্রাবিংয়ের পালা।১ চামচ কফি পাউডার,১ চামচ মাঝারি দানার চিনি,আধ চামচ অলিভ অয়েল কয়েক ফোঁটা গরম জল দিয়ে মিশিয়ে মুখে গলায় লাগিয়ে আঙুলের মাথা দিয়ে হাল্কা ভাবে মাসাজ করবেন ,কারণ জোরে ঘষলে চিনির দানায় স্কিন ছড়ে যেতে পারে।বেশ কিছিক্ষন মাসাজ করে ধুয়ে ফেলুন।
  • স্ক্রাবিং শেষে মধু দিয়ে সার্কুলার মোশনে মাসাজ শুরু করুন।
  • মাসাজ শেষ হলে ১ চামচ কফি গুঁড়ো,২ টেবিল চামচ মধু,১ চামচ দুধের মাঠা,২ টেবিল চামচ ওট্স গুঁড়ো মিশিয়ে প্যাক বানিয়ে লাগান।১৫ মিনিট রেখে ঠান্ডা জলে ধুয়ে ফেলুন।
  • একদম শেষে ১ চামচ গ্রিন টির লিকার,আধ চামচ অলিভ অয়েল,আধ চামচ অ্যালোভেরা জেল মিশিয়ে মাসাজ করে নিন।এটা ময়েশ্চারাইজার আর টোনার হিসেবে কাজ করবে।

ন্যাচারাল স্কিনের জন্য

  • ঠান্ডা দুধ নিয়ে গলা,মুখ মাসাজ করে ভেজা তুলো দিয়ে পরিষ্কার করে নিন।
  • ১ টেবিল চামচ কাঁচা দুধ,২ টি কাঠবাদামবাটা মিশিয়ে আস্তে আস্তে মাসাজ শুরু করুন।
  • ১৫ মিনিট মাসাজ করার পর ২ টোবেলচামচ কাঠবাদামবাটা মুখে,গলায় লাগান।এবারের পেস্টটি এমনভাবে বানাবেন যাতে বাদাম সামান্য দানা দানা থাকে।মিনিট দশেক হাল্কা হাতে মাসাজ করে ভেজা কাপড় দিয়ে মুছে ফেলুন।এতে ডেড সেলস উঠে যাবে।
  • আধ গামলা জলে ২ চামচ গ্রিন টি ফুটিয়ে ভাপ নিন।
  • ৩ টেবিল চামচ টোম্যাটো পেস্ট ,৩/৪ ফোঁটা মধু,৩ টেবিল চামচ কাঠবাদামবাটা একটা প্যাক বানিয়ে মেখে নিন।
  • ২০ মিনিট পর  প্যাক ধুয়ে সামান্য আমন্ড অয়েল মাসাজ করে নিন।

অয়েলি স্কিনের জন্য

  • পাকা পেঁপে মুখে গলায় আলতো করে ঘষে ধুয়ে নিন।এটি খুব ভালো ক্লেনজার যা ত্বকের দাগ,ছোপ তুলতে সাহায্য করে।
  • এবার শশা,পুদিনা.কমলালেবুর রস মিশিয়ে মাসাজ করুন।
  • ২ টেবিল চামচ কমলালেবুর খোসা গুঁড়ো,২ টেবিল চামচ কমলালেবুর রস মিশিয়ে মেখে ২০ মিনিট ওয়েট করুন।
  • ২৫ /৩০ গোল ফুলের পাপড়ি এক কাপ জলে ফুটিয়ে ফুটিয়ে ছেঁকে রাখুন/২০ মিনিট পর এই জল অ্যালোভেরা জেলের সঙ্গে মিশিয়ে ময়েশ্চারাইজারের মতো ব্যবহার করুন।

মিক্সড স্কিনের জন্য

  • মধু আর তুলসীপাতা বাটা মেখে মুখ,গলা পরিষ্কার করুন।
  • মিহি ভুট্টার ছাতুর সঙ্গে মধু মিশিয়ে মাসাজ করুন।
  • টি-জোন বরাবর (কপাল আর নাকের নিচ ) নিমপাতাবাটা আর মুখের বাকি অংশে মুলতানি মাটি,কাঁচা হলুদ ও চন্দনবাটা মিশিয়ে লাগান।
  • ১৫ মিনিট রেখে ধুয়ে নিয়ে নারকেল তেল ও সামান্য হল দিয়ে মাসাজ করুন।

সেনসিটিভ স্কিনের জন্য

  • দুধ দিয়ে মুখ পরিষ্কার করে শশা ও পাকা পেঁপের পেস্ট দিয়ে মাসাজ করুন।
  • ৫ মিনিট পর শুয়ে হাল্কা ভেপার নিন।
  • এবার নিম,হলুদ,চন্দনের প্যাক লাগান।
  • ১৫ মিনিট পর ধুয়ে গোলাপজল ও মধু দিয়ে মাসাজ করে নিন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *